“মমতা ব্যানার্জি আমার মৃত্যুর জন্য দায়ী”, আত্মহত্যার আগে শেষ চিঠি লিখলেন IPS অফিসার!!!! বিস্তারিত জানুন!!


চাঞ্চল্যকর খবর উঠে আসলো পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মাননীয় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে!!

১৯৮৬-এর ব্যাচ এর আই পি এস অফিসার গৌরব দত্ত এই সপ্তাহেই মঙ্গলবার আত্মহত্যা করেন।সম্পূর্ণ রক্তে ভরে থাকা একটি সুইমিং পুলের মধ্যে থেকে তার দেহকে উদ্ধার করা হয়। বাঁ হাতের নাড়ি কেটে আত্মহত্যা করেন তিনি। কিন্তু তার থেকেও বড় চাঞ্চল্যকর এবং রহস্যময় ঘটনা উঠে আসে আত্মহত্যা ঠিক আগে লেখা তাঁর চিঠির মধ্য দিয়ে।

চিঠি টিকে তিনি অত্যন্ত স্বাভাবিক মস্তিষ্কের সাথে লিখেছিলেন এই উল্লেখ করেন তিনি।

চিঠিতে তিনি যা লেখেন তা হল:-

পশ্চিমবঙ্গের বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আমার আত্মহত্যার জন্য সরাসরি দায়ী। তিনি আমার হাজারো অনুরোধ সত্ত্বেও আমার ওপর থাকা দুটো কেস কে নিয়ে কোন পদক্ষেপ নেননি এবং তাকে উঠানো নি।তার মধ্যে একটি কেসের ফাইল ইচ্ছাকৃতভাবে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের দ্বারা হারিয়ে ফেলা হয়েছিল এবং দ্বিতীয় কেস এও আমার উপরে কোন রকমের দুর্নীতির কেস না থাকা সত্ত্বেও সেই কেস কে আটকে রাখা হয়েছিল।এমনকি তৎকালীন ডাইরেক্টর জেনারেল অব পুলিশ ও মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আবেদন করেছিল কেস উঠিয়ে নেওয়ার জন্য । কিন্তু মুখ্যমন্ত্রী তা করেননি।দীর্ঘ ১০ বছর ধরে বর্তমান পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আমাকে দোষারোপ করে গিয়েছেন এবং শুধুমাত্র নিজের প্রতি হিংসার জন্য দীর্ঘ ১০ বছর ধরে আমাকে বিভিন্ন রকমের কথা এবং হেনস্তার করেছেন তিনি। তার কি এমন স্বার্থ ছিল তা আমি জানিনা।”

চিঠির কথা অনুযায়ী পশ্চিমবঙ্গ সরকার আইপিএস অফিসারের পেনশন কেউ বন্ধ করে দিয়েছিল।

“তাই আজ আমি এই আত্মহত্যার পথ বেছে নিতে বাধ্য হলাম। কারণ এতে আমার বন্ধ হয়ে থাকা জমানো টাকাগুলো আমার পরিবার পাবে এবং বাকি জীবনটা সম্মানের সাথে কাটাতে পারবে। এতটাই কঠোর তিনি একজন সরকারি কর্মচারী কে রিটায়ারমেন্ট এর পরও তার আক্রোশের থেকে বাইরে বের করেননি। এটা প্রকৃতপক্ষে এক শাসকদলের আমার উপর করা অত্যাচারের ছাড়া আর কিছুই নয়।পশ্চিমবঙ্গের অবস্থা খুবই শোচনীয় ।কারো স্বাধীনভাবে কাজ করবার সৎ ভাবে কাজ করবার কোন স্বাধীনতা নেই। আমার মনে হয় এই অবস্থা কখনোই শেষ হবেনা।”

তিনি আরো বলেন,”একজন ব্যক্তি যদি সম্মানের সাথে নিজের জীবনকে বাঁচতে না পারেন তাহলে সেই জীবনের থেকে মরে যাওয়াই অনেক বেশি শ্রেয় আর তাই আমি আজ এই পথ বেছে নিতে বাধ্য হলাম।”

Loading…

2010 সালে পশ্চিমবঙ্গ সরকার গৌরব দত্ত কে তাঁর চাকরি থেকে সাসপেন্ড করে দিয়েছিল এবং অনির্দিষ্টকালের জন্য ছুটিতে রেখে দিয়েছিল।পদ্মভূষণ প্রাপ্ত আইপিএস অফিসারের ছেলে হয়ে এত বড় অপবাদ সহ্য করা তার পক্ষে একেবারেই সম্ভব ছিল না।

Join Our WhatsApp GroupWhatsApp-Logo Click here.png

এই রকম আরও বিভিন্ন নিউজ সম্বন্ধে জানতে আমাদের ফেসবুক পেইজটি লাইক করে রাখুন। Netdarpan এর ফেসবুক পেইজ লাইক করার সাথে সাথে আমাদের ওয়েবসাইট কে Subscribe করে রাখুন সকল নিউজ তৎক্ষণাৎ আপনার কাছে পৌঁছে যাওয়ার জন্য।। এতে পশ্চিমবঙ্গ , ভারতবর্ষ এবং সারা বিশ্বের বিভিন্ন কোনায় ঘটে ধাকা বিভিন্ন রকমের খবর সম্বন্ধে আপনারা বিস্তারিতভাবে সম্পূর্ণভাবে আপডেটেড থাকতে পারবেন। ধন্যবাদ।।

Loading…
0 Shares

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.