আলিপুরদুয়ার মিউনিসিপালিটি হল এর ভেতরকার অত্যাধুনিক নতুন চেহারা!!


নেটদর্পন ব্যুরো : উন্নয়ন এবং বিকাশের স্বপ্ন দেখিয়ে আসা তৃণমূল সরকার পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন দিকে চরম উন্নয়নের বিভিন্ন রকমের প্রতিচ্ছবি দেখিয়েছেন এবং তার সেই সকল উন্নয়নের মধ্য থেকেই আরেকটি উদাহরণ আলিপুরদুয়ারবাসীর কাছে উপহারস্বরূপ পৌঁছতে চলেছে।আলিপুরদুয়ারের বুকে অর্থাৎ কেন্দ্রে বিভিন্ন রকমের সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পটভূমি তথা মিউনিসিপালিটি হল কে গত এক বছরেরও অধিক সময় ধরে সম্পূর্ণরূপে বন্ধ করে তার ভেতরের আধুনিকতা এবং উন্নয়নের ছোঁয়া দেওয়ার কাজ শুরু হয়েছিল।আর সেই দিন দূরে নেই যখন নাকি আলিপুরদুয়ার বাসী বিকাশ এবং উন্নয়নের প্রতিচ্ছবি কে সম্পূর্ণ ভাবে উপলব্ধি করতে পারবেন।

এটি শুধু উন্নয়ন কিংবা বিকাশ নয় সাংস্কৃতিক এ এক নতুন দৃষ্টান্ত দেওয়া।বহু বছর থেকে সম্পূর্ণভাবে পুরনো হয়ে যাওয়া মিউনিসিপালিটি হল কে আধুনিকতার মাধ্যমে সম্পূর্ণরূপে বদলে দিয়ে আলিপুরদুয়ার বাসীকে এক সম্পূর্ণ নতুন উপহার দিতে চলেছে তৃণমূল সরকার তথা আলিপুরদুয়ারের বিধায়ক ডক্টর সৌরভ চক্রবর্তী।নতুন আরামদায়ক চেয়ার থেকে শুরু করে এলইডি লাইট এবং সম্পূর্ণ রকম অত্যাধুনিক জিনিসপত্র এর মাধ্যমে এক অত্যাধুনিক এবং আধুনিক হল পেতে চলেছে আলিপুরদুয়ার বাসী।


mh3

গত এক বছর আগে আলিপুরদুয়ারের বিধায়ক ডাক্তার সৌরভ চক্রবর্তী তাঁর এক ভাষণে বলেছিলেন যে এই মিউনিসিপালিটি হল কে সম্পূর্ণরূপে বদলে দিয়ে একে আরো অনেক সুবিধা এবং আধুনিকতার ছোঁয়া তিনি দেবেন।এবং সেই মতই আধুনিক অর্থের বিভিন্ন রকমের জিনিস পত্রের সাথে সাথেই সম্পূর্ণভাবে শীততাপ নিয়ন্ত্রিত এই হল আর কিছুদিনের মধ্যেই উন্মুক্ত হতে চলেছে ।যা আলিপুরদুয়ার বাসীকে অন্যান্য যে কোন উন্নত মেট্রোপলিটান শহরগুলির মত আনন্দ দেওয়ার মাধ্যমে সাংস্কৃতিক গান বাজনা নাচ অনুষ্ঠান ইত্যাদি বিভিন্ন দিক থেকেই উন্নতির চরম শিখরে নিয়ে যাবে।


mh2.jpg

Netdarpan এর পক্ষ থেকে মিউনিসিপালিটি হলের ভেতরেই একেবারে নতুন আধুনিক সাঁঝ শয্যার কিছু ছবি দেওয়া রইল।এরকমই আলিপুরদুয়ারের বিভিন্ন রকমের রোমাঞ্চকর এবং নতুন নতুন খবর সম্বন্ধে সম্পূর্ণ আপডেটের থাকবার জন্য এবং তার সাথে দেশ এবং বিশ্বের সমস্ত রকমের রোমাঞ্চকর এবং জ্ঞান বিহার সম্বন্ধে জানার জন্য নেট দর্পণ এর ফেসবুক পেজ কে অবশ্যই লাইক করুন এবং আমাদের ওয়েবসাইটে সাবস্ক্রাইব করুন। ধন্যবাদ।

0 Shares

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.